18 C
Dhaka
Wednesday, January 26, 2022
spot_img

করোনাঃ পৃথিবীতে মৃত্যু ৫৪ লাখ ছাড়ালো

বিশ্বজুড়ে চলমান করোনা মহামারিতে দৈনিক মৃত্যুর সংখ্যা কমেছে। তবে আগের দিনের তুলনায় উল্লেখযোগ্য পরিমাণে বেড়েছে নতুন সংক্রমিত রোগীর সংখ্যা।

সারাবিশ্বে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ছয় হাজার ৫৬০ জন। অর্থাৎ আগের দিনের তুলনায় মৃত্যুর সংখ্যা কমেছে পাঁচ শতাধিক। এতে মহামারির শুরু থেকে এ পর্যন্ত মোট মৃতের সংখ্যা পৌঁছেছে ৫৪ লাখ ২৮৭ জনে।

একই সময়ের মধ্যে ভাইরাসটিতে নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন নয় লাখ ৭১ হাজার ৫৯১ জন। অর্থাৎ আগের দিনের তুলনায় নতুন শনাক্ত রোগীর সংখ্যা বেড়েছে লক্ষাধিক। এতে মহামারির শুরু থেকে এ পর্যন্ত ভাইরাসে আক্রান্ত মোট রোগীর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৭ কোটি ৮৪ লাখ ৯৪ হাজার ৭৪২ জনে।

শুক্রবার (২৪ ডিসেম্বর) সকালে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত, মৃত্যু ও সুস্থতার হিসাব রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটারস থেকে এসব তথ্য পাওয়া যায়।

গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ ও প্রাণহানির ঘটনা ঘটেছে যুক্তরাষ্ট্রে। দেশটিতে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন দুই লাখ ৬৭ হাজার ২৬৯ জন। মারা গেছেন এক হাজার ১৪৯ জন। দেশটিতে এখন পর্যন্ত পাঁচ কোটি ২৭ লাখ ৮৮ হাজার ৪৫১ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। মারা গেছেন আট লাখ ৩৪ হাজার ৪৫৫ জন।

দৈনিক প্রাণহানির তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে রাশিয়া। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে করোনায় মারা গেছেন এক হাজার ২ জন। নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ২৫ হাজার ৬৬৭ জন। এ পর্যন্ত দেশটিতে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা এক কোটি তিন লাখ ১৮ হাজার ৬৫০ জন। মৃত্যু হয়েছে তিন লাখ এক হাজার ২৭১ জনের।

করোনায় আক্রান্তের দিক থেকে তৃতীয় ও মৃত্যুর সংখ্যায় তালিকার দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে লাতিন আমেরিকার দেশ ব্রাজিল। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে করোনায় সংক্রমিত হয়ে মারা গেছেন ১০০ জন। নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন তিন হাজার ৬৪৫ জন। এ নিয়ে দেশটিতে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা দুই কোটি ২২ লাখ ২৬ হাজার ৫৭৩ জন। মৃত্যু হয়েছে ছয় লাখ ১৮ হাজার ২২৮ জনের।

করোনায় আক্রান্তের তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে প্রতিবেশী দেশ ভারত। তবে ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃতের সংখ্যার তালিকায় দেশটির অবস্থান তৃতীয়। মহামারির শুরু থেকে এখন পর্যন্ত দেশটিতে মোট আক্রান্ত তিন কোটি ৪৭ লাখ ৭২ হাজার ৬৫৭ জন। মারা গেছেন চার লাখ ৭৮ হাজার ৮৬৩ জন।

প্রসঙ্গত, ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীনের উহানে প্রথম করোনায় আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়। এরপর গত বছরের ১১ মার্চ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) করোনাকে ‘বৈশ্বিক মহামারি’ হিসেবে ঘোষণা করে। এর আগে একই বছরের ২০ জানুয়ারি বিশ্বজুড়ে জরুরি পরিস্থিতি ঘোষণা করে সংস্থাটি।

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Stay Connected

22,044FansLike
3,139FollowersFollow
0SubscribersSubscribe
- Advertisement -spot_img

Latest Articles